Breaking News

‘আমার সরকারি গুণ্ডা আছে’

চট্টগ্রামের বাঁশখালীর পুঁইছড়ি ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে নৌকার মনোনীত চেয়ারম্যান প্রার্থী জাকের হোসেন চৌধুরী বাচ্চু বলেছেন, তিনি সরকারি দলের লোক, তার কাছে সরকারি গুণ্ডা আছে, তাদের নির্দেশ দিলেই তার পক্ষে কাজ করবে।

 

 

রোববার রাতে উপজেলার পুঁইছড়ি প্রেমবাজারে নির্বাচনি পথসভায় তিনি এ বক্তব্য দেন।জাকের হোসেনের বক্তব্যের একটি ভিডিও মঙ্গলবার বিকালে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে।

 

 

প্রায় ৪০ সেকেন্ডের ওই ভিডিওতে জাকের হোসেন ভোটারদের উদ্দেশ্যে বলেন— আপনারা শান্তিপূর্ণভাবে ভোট দিতে পারবেন। যত বড় গুণ্ডা হোক, যত বড় পয়সাওয়ালা হোক, একবিন্দুও বিশৃঙ্খলা করার সুযোগ নেই।

 

 

‘আমি সরকারি দলের লোক। আমার তো সরকারি গুণ্ডা আছে। আছে না? লাইসেন্সধারী! এরা কি এদের কাজ করবে নাকি আমি নির্দেশ দিলে আমার কাজ করবে? এখানে এত হুমকি-ধমকি ভয়-টয় আপনারা করবেন না। এগুলো আপনারা জানেন।’

 

 

তিনি আরও বলেন, এই এলাকায় প্রেমবাজারে এক সময় ডাকাতের অভয়ারণ্য ছিল। তারা রাতে ডাকাতি করত, দিনের বেলায় বিভিন্ন জায়গায় জুয়া খেলত। তারা আওয়ামী লীগের নাম বিক্রি করত।

 

 

বক্তব্যের বিষয়ে জানতে চাইলে আওয়ামী লীগ সমর্থিত চেয়ারম্যান প্রার্থী জাকের হোসেন চৌধুরী বাচ্চু বলেন, আমার এলাকায় কিছু প্রার্থী ভোটারদের হুমকি-ধমকি দিয়ে যাচ্ছে, সে কারণে আমি বলেছি- এখানে পুলিশ বাহিনী থাকবে, এখানে কেউ জোর করে ভোট নিতে পারবে না।

 

 

ভিডিওটি কে বা কারা এডিট করে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে ছড়িয়ে দিয়েছে বলে দাবি করেন তিনি।বাঁশখালী থানার ওসি মো. কামাল উদ্দিন বলেন, এ বিষয়ে উপজেলা রিটার্নিং কর্মকর্তা আমাকে জানিয়েছেন। চেয়ারম্যান প্রার্থীর ভাইরাল হওয়া ভিডিওর বিষয়ে তদন্ত চলছে। সত্যতা পেলে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মো. ফয়সাল আলম বলেন, ভিডিওটি আমাদের দৃষ্টিগোচর হয়েছে। আচরণবিধি লঙ্ঘনের অভিযোগে পুঁইছড়ি ইউনিয়ন পরিষদের নৌকা সমর্থিত চেয়ারম্যান প্রার্থীকে চিঠি ইস্যু করা হয়েছে।

About admin

Check Also

হেলিকপ্টারে বউ এনে স্বপ্নপূরণ

হেলিকপ্টারে চড়ে ছেলে বিয়ে করবেন; এমনই স্বপ্ন দেখতেন মা-বাবা। অবশেষে বড় হয়ে সেই স্বপ্ন বাস্তবে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *